বিষয়ভিত্তিক ক্যাটাগরি

  • video-shot

    MP4

    এই বিষয়টি যুলহিজ্জাহ মাসের প্রথম দশকের আলোচনা করা হয়েছে

  • PDF

    ১৪৩৫ হি. মক্কার মসজিদে নামিরায় প্রদত্ত আরাফার খুতবার সংক্ষিপ্ত অনুবাদ। সৌদি আরবের গ্রান্ড মুফতি এ খুতবায় আরাফা দিবসের মর্যাদা, বিশেষত এবার ছিল তা জুমার দিন। সপ্তাহের শ্রেষ্ঠ দিন, বছরের শ্রেষ্ঠ দিন। এবং এদিন হাজীদের করণীয় এবং হজে না আসা অন্যদের করণীয় সম্পর্কে আলোকপাত করা হয়েছে।

  • PDF

    এটি যিলহজ মাসের ১ম দশদিনের ফযিলত ও আমল এবং কুরবানী ও কুরবানী পরবর্তী তিন সম্পর্কে একটি মূল্যবান রিসালা এতে এ দিন গুলো করণীয় ও ফযিলত সম্পর্কে সংক্ষিপ্ত একটি আলোচনা তুলে ধরা হয়েছে।

  • PDF

    বক্ষমাণ পুস্তিকায় যিলহজের প্রথম তের দিনের করণীয় ও বিধি-বিধান সম্পর্কে আলোকপাত করা হয়েছে। প্রথম দশ দিন, আইয়ামে তাশরীক ও হজ-উমরা সংক্রান্ত বহু প্রয়োজনীয় বিষয় সন্নিবেশিত হয়েছে।

  • PDF

    বইটিতে গ্রন্থকার কুরআন ও সুন্নাহর আলোকে যিলহজের প্রথম দশদিনের ফযীলত ও করণীয়, ঈদুল আযহার করণীয়-বর্জনীয়, আইয়ামে তাশরীকের আমলসমূহ বিস্তারিত আলোচনা করেছেন।

  • PDF

    এ প্রবন্ধে কুরআন ও সুন্নাহর আলোকে যিলহজের প্রথম দশকের ফযীলত, এতে করণীয় আমলসমূহ আলোচিত হয়েছে।

  • PDF

    বান্দার উপর আল্লাহর অনুগ্রহের একটি হল, তিনি তার বান্দাদের জন্য ইবাদত-বন্দেগীর কিছু মৌসুম রেখেছেন, যেখানে তারা সৎ কাজ অধিকমাত্রায় পালন করবে, আল্লাহর নৈকট্য অর্জনে সহায়ক কর্মসমূহ সম্পাদনে তারা প্রতিযোগিতায় নামবে। অতঃপর সে ব্যক্তি সৌভাগ্যবান যে এ মৌসুমগুলো যথার্থরূপে কাজে লাগাবে, অবহেলায়, গুরুত্বরহিত হয়ে তা অতিক্রান্ত হতে দেবে না। এ অনন্য বৈশিষ্ট্যমণ্ডিত মৌসুমগুলোর একটি হল যিলহজের প্রথম দশক। রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম যিলহজের এ দিনগুলোকে পৃথিবীর সর্বোত্তম দিন বলে আখ্যায়িত করেছেন এবং এ সময়ে সৎ কাজ করার প্রতি তিনি উৎসাহ দিয়েছেন। শুধু তাই নয় বরং স্বয়ং আল্লাহ তাআলা এ দিবসগুলো নিয়ে শপথ করেছেন। ফজিলত ও মর্যাদায় অনন্য হওয়ার জন্য এতটুকুই যথেষ্ট; কেননা যিনি মহান তিনি মহিমান্বিত বিষয় ছাড়া শপথ করেন না। অতএব বান্দার উচিত এ দিনগুলোয় সৎ কর্ম বাড়িয়ে দেয়া, এ ক্ষেত্রে অধিকমাত্রায় শ্রম দেয়া, উত্তমভাবে এ দিনগুলোকে স্বাগত জানানো। বক্ষ্যমাণ প্রবন্ধে যিলহজের প্রথম দশক সংক্রান্ত কিছু ফজিলত বর্ণিত হয়েছে, সাথে রয়েছে ঈদুল আযহা ও কুরবানীর কিছু আহকাম।

  • DOC

    হিজরী মাসসমূহের শেষ মাস হল জিলহজ । এ মাসের প্রথম দশ দিন হল বছরের শ্রেষ্ঠ সময় । আমালে সালেহার সর্বোত্তম মওসুম । রাসূলুল্লাহ সা. এ দশ দিনের ফজিলত বর্ণনা করার সাথে সাথে মুসলমানদের বেশী করে নেক আমল করতে উদ্ভুদ্ধ করেছেন । কি কি আমল বেশী করে করতে হবে সে সম্পর্কে দিয়েছেন সম্পষ্ট নির্দেশনা । এ বিষয়গুলো নিয়েই প্রবন্ধটির অবতারনা ।

  • PDF

    যিলহজ মাসের প্রথম দশক অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সময়। এ দশকে এবাদত-বন্দেগির তুলনায় আল্লাহর নিকট অধিক প্রিয় অন্য কোনো কাল ও সময় নেই মর্মে হাদিসে এসেছে। আরাফা দিবস মাগফেরাত ও জাহান্নাম থেকে মুক্তিলাভের শ্রেষ্ঠ দিবস, যে দিবসের রোজা বিগত ও আগত এক বছরের পাপের কাফফারা। এ দিবসটিও যিলহজ মাসের প্রথম দশকেই অবস্থিত। ইয়াউমুন নাহর, যা হাদিসের ভাষ্যানুযায়ী সমধিক মহিমান্বিত দিবস, যিলহজের প্রথম দশকেই অবস্থিত। বড় ঈদ ও কোরবানি এ দশকেই স্থান পেয়েছে, এবং উভয়টারই রয়েছে ভিন্ন ভিন্ন আহকাম। আমাদের বর্তমান রচনাটি উল্লিখিত সবকটি বিষয়কেই আলোচনায় এনেছে যথার্থভাবে। রচনাটি পাঠকবৃন্দের উপকারে আসবে বলে আমাদের আশা।

আপনার মতামত আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ