বর্ণনা

একটি প্রশ্নের উত্তরে ফতোয়াটি প্রদান করা হয়। প্রশ্নটি হল: নিয়ম ভঙ্গ করার ফলে ছাত্রদের থেকে আটককৃত বস্তুর হুকুম কি ? যেমন খেলনার পাথর, চুয়িংগাম, দানা ও আংটি ইত্যাদি। আমি নিজে গুটি ও চুয়িংগাম আটক করি এবং ময়লা-আবর্জনা ফেলার জন্য জরিমানা করি। তবে, দানা ও আংটি প্রতিষ্ঠানে জমা করি। প্রতিষ্ঠান বলে : দায়মুক্ত হওয়ার জন্য এগুলো তাদেরকে ফেরৎ দাও। মূল প্রশ্ন হচ্ছে, এ অবস্থায় ছাত্রদের থেকে যা কিছু আটক করা হয়, তার বিধান কি ?

সম্পূর্ণ বিবরণ

> > > >

নিয়ম ভঙ্গ করার ফলে ছাত্রদের থেকে আটককৃত বস্তুর হুকুম

প্রশ্ন :

নিয়ম ভঙ্গ করার ফলে ছাত্রদের থেকে আটককৃত বস্তুর হুকুম কি ? যেমন খেলনার পাথর, চুয়িংগা, দানা আংটি ইত্যাদি আমি নিজে গুটি চুয়িংগা আটক করি এবং ময়লা-আবর্জনা ফেলার জন্য জরিমানা করি তবে, দানা আংটি প্রতিষ্ঠানে জমা করি প্রতিষ্ঠান বলে : দায়মুক্ত ওয়ার জন্য এগুলো তাদেরকে ফেরৎ দাও মূল প্রশ্ন হচ্ছে, অবস্থায় ছাত্রদের থেকে যা কিছু আটক করা হয়, তার বিধান কি ?

 

উত্তর :

আল-হামদুলিল্লাহ

ছাত্ররা যদি জানে যে, এসব জিনিস ক্লাসে ব্যবহার করা, অথবা বিদ্যালয়ে নিয়ে হাজির হওয়া নিষেধ, এবং যে এর বিরোধিতা করবে, তার থেকে তা আকট করা হবে তাহলে এসব জিনিস আটক করে নিয়ম ভঙ্গকারীকে শাস্তি দেয়া বৈধ অতঃপর এসব বস্তু যদি খুব সামান্য হয়, তবে এর থেকে মুক্ত হওয়া বৈধ  আর যদি খুব দামি জিনিস হয়, তাহলে তা দিন শেষে, অথবা পাঠ শেষে তার কাছে, অথবা তার অভিভাবকের কাছে ফেরৎ দেবে বিদ্যালয় যেরূপ সমিচিন মনে করে

শায়খ ইবনে উসাইমিন রাহিমাহুল্লাহ-কে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, শিক্ষকের জন্য কি বৈধ রয়েছে, পাঠদান মুহূর্তে খেলার সময় ছাত্রদের থেকে কিছু নিয়ে নেয়া এবং তা বিদ্যালয়ে সোপর্দ করা উল্লেখ্য, এর মধ্যে কিছু জিনিস খুব মূল্যাবান থাকে ?

তিনি উত্তর দিয়েছে : বিষয়টির মূল ভিত্তি হচ্ছে সম্পদের মাধ্যমে শাস্তি দেয়ার বৈধতার উপর কতক আলেম বলেছেন : সম্পদ গ্রহণ করে শাস্তি দেয়া কোন অবস্থাতেই বৈধ নয়, তবে যে ব্যাপারে দলিল রয়েছে, সে বিষয়টি ভিন্ন

কতক আলেম বলেছেন : সম্পদের মাধ্যমে শাস্তি দেয়া বৈধ আর এটাই অধিক বিশুদ্ মত ছাত্রদের যদি ব্লাক বোর্ড বা নোটিশের মাধ্যমে জানিয়ে দেয়া হয় যে, কোন ব্যক্তি যদি খেলার জন্য কিছু নিয়ে আসে, তার থেকে তা নিয়ে নেয়া হবে, তা সত্বেও যদি কোন ছাত্রকে কিছু নিয়ে খেলাবস্থায় পাওয়া যায়, তাহলে তার থেকে তা নিয়ে নেয়া বৈধ কিন্তু ছাত্র যদি গরিব হয়, জিনিসটি যদি হয় দামি, তবে বিদ্যালয়ে সংরক্ষিত থাকবে বছর শেষে ছাত্রকে অথবা তার অভিভাবককে তা ফেরৎ দেয়া হবে সমাপ্ত

সূত্র

islamqa.info

আপনার মতামত আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ